বুধবার, ৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২৩ | ২৫ মাঘ, ১৪২৯ | ১৬ রজব, ১৪৪৪

মূলপাতা বিএনপি

মির্জা ফখরুল ও মির্জা আব্বাসকে বাসা থেকে তুলে নেয়ার অভিযোগ


রাজনীতি সংবাদ প্রতিবেদন প্রকাশের সময় :৯ ডিসেম্বর, ২০২২ ৭:৪১ : পূর্বাহ্ণ
বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর ও দলটির স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস।

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর ও দলটির স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাসকে তাদের বাসা থেকে গোয়েন্দা পুলিশ তুলে নিয়ে গেছে বলে অভিযোগ করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার রাত ৩টার দিকে রাজধানীর উত্তরার বাসা থেকে মির্জা ফখরুলকে এবং একই সময় ঢাকার শাহজাহানপুরের বাসা থেকে মির্জা আব্বাসকে সাদা পোশাকের পুলিশ তুলে নিয়ে যায় বলে পরিবারের পক্ষ থেকে অভিযোগ করা হয়।

মির্জা ফখরুল ইসলামের স্ত্রী রাহাত আরা বেগম দাবি করেন, রাত দশটা থেকে তাদের বাসার আশপাশে অবস্থান নেয় গোয়েন্দা পুলিশ। পরে রাত সাড়ে তিনটার দিকে বিএনপি মহাসচিবকে বাসা থেকে নিয়ে যায়।

সম্প্রতি পল্টন এলাকায় সংঘর্ষের ঘটনায় মামলার প্রেক্ষিতে মির্জা ফখরুল ইসলামকে নিয়ে যাওয়া হয়েছে বলে জানান তার স্ত্রী।

অন্যদিকে মির্জা আব্বাসের স্ত্রী আফরোজা আব্বাসের অভিযোগ, সমাবেশের ভেন্যু পরিদর্শন শেষে বাসায় জ্যেষ্ঠ নেতাদের সঙ্গে বৈঠক করেন মির্জা আব্বাস। পরে, নেতারা বাসা থেকে বের হয়ে গেলে সাদা পোশাকের পুলিশ একটি গাড়িতে করে তাকে নিয়ে যায়।

বিএনপির প্রেস উইংয়ের সদস্য শায়রুল কবির খান বিষযটি নিশ্চিত করে গণমাধ্যমকে বলেন, রাত ৩টার পরে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুলকে তার উত্তরের বাসা থেকে এবং ৩টা ২০ মিনিটে স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাসকে তার শাহজাহানপুরের বাসা থেকে গোয়েন্দা পুলিশ তুলে নিয়ে যায়।

এর আগে বৃহস্পতিবার রাতে ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) কমিশনার খন্দকার গোলাম ফারুকের সঙ্গে বৈঠকের পর কমলাপুর স্টেডিয়াম ও মিরপুর বাঙলা কলেজের মাঠ পরিদর্শনে যায় বিএনপির একটি প্রতিনিধি দল।

দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য ও ঢাকা বিভাগীয় গণসমাবেশের প্রধান উপদেষ্টা মির্জা আব্বাসের নেতৃত্বে এ প্রতিনিধি দল শুক্রবার প্রথম প্রহরে সম্ভাব্য সমাবেশস্থল নির্ধারণে সরেজমিনে যান।

পরে সাংবাদিকদের মির্জা আব্বাস বলেন, ‘দুইটা মাঠ দেখেছি। স্থায়ী কমিটির সঙ্গে আলাপ করে পরবর্তীতে সিদ্ধান্ত জানাবো। কোথাও নিরাপদ নয় বিএনপি কর্মীরা। সিদ্ধান্ত নিতে পারছি না।’


আরও খবর