শুক্রবার, ২১ জুন, ২০২৪ | ৭ আষাঢ়, ১৪৩১ | ১৪ জিলহজ, ১৪৪৫

মূলপাতা আঞ্চলিক রাজনীতি

জনগণের নয়, আওয়ামী লীগের উন্নয়ন হয়েছে: ফখরুল


রাজনীতি সংবাদ প্রতিনিধি, লালমনিরহাট প্রকাশের সময় :২০ মে, ২০২৩ ১০:১২ : অপরাহ্ণ
শনিবার বিকেলে লালমনিরহাট কালেক্টরেট মাঠে জেলা বিএনপি আয়োজিত জনসমাবেশে বক্তব্য রাখেন দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।
Rajnitisangbad Facebook Page

দেশের জনগণের নয়, আওয়ামী লীগের উন্নয়ন হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

তিনি বলেন, ‘রংপুর থেকে যখন লালমনিরহাটে প্রবেশ করি, তখন দেখি রাস্তাঘাট খুবই খারাপ। সরকার বলছে উন্নয়ন উন্নয়ন। বাস্তবে জনগণের কোনো উন্নয়ন হয়নি। উন্নয়ন হয়েছে আওয়ামী লীগের। ব্যাংক, টিসিবি, টিআর, কাবিখা রাস্তা-ঘাট সবই তাদের দখলে।’

আজ শনিবার বিকেলে লালমনিরহাট শহরের কালেক্টরেট মাঠে জেলা বিএনপি আয়োজিত জনসমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি।

নির্দলীয়, নিরপেক্ষ তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন, খালেদা জিয়ার মুক্তিসহ ১০ দফা দাবিতে এ সমাবেশের আয়োজন করা হয়।

দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধির সমালোচনা করে মির্জা ফখরুল বলেন, ‘দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি আজ মানুষের নাভিশ্বাস। কাঁচা বাজার থেকে শুরু করে সব জিনিসের দাম হু হু করে বাড়ছে।’

বিএনপি মহাসচিব বলেন, ‘১০ দফা নয়, ২০ দফা নয়, দাবি এখন একটাই শেখ হাসিনার পদত্যাগ। দফা এক শেখ হাসিনার পদত্যাগ। এই দাবি শুধু আমাদের নয়, দেশের জনগণেরও। লুটেরা এই সরকার ক্ষমতায় থাকুক তা এক মুহুর্তেও চান না দেশের শান্তিপ্রিয় মানুষ।’

মির্জা ফখরুল বলেন, ‘নিরপেক্ষ তত্ত্বাবধায়ক সরকার ছাড়া নির্বাচন হবে না। তত্ত্বাবধায়ক সরকার গঠনের পাশাপাশি নতুন নির্বাচন কমিশন গঠন করতে হবে। বর্তমান নির্বাচন ঠুঁটো জগন্নাথ। এই নিবার্চন কমিশনের অধিনে কোনো ভোটই সুষ্ঠু হবে না।’

কৃষক আন্দোলনের নেতা নূরল দীনের নাম উল্লেখ করে বিএনপি মহাসচিব বলেন, ‘আপনাদের এই এলাকায় তার বাড়ি ছিল। যিনি কৃষক আন্দোলনের ডাক দিয়েছিলেন ‘জাগো বাহে, কোনঠে সবাই’। আজকে আবার সেই ডাক এসেছে। আজকে আবার কারাগারের অভ্যন্তর থেকে গৃহবন্দী খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে হবে।’

আরও পড়ুন: সরকার পতনের দিনটা কখন, ফখরুলের কাছে জানতে চাইলেন কাদের

মির্জা ফখরুল বলেন, ‘আমাদের নেতা তারেক রহমান বলেছেন, রাজনীতির এই খেলার ফয়সালা হবে রাজপথে। ফিডব্যাক বাংলাদেশ। যে বাংলাদেশকে আমরা যুদ্ধ করে স্বাধীন করেছিলাম। সেই বাংলাদেশের জন্য মুক্তিযোদ্ধারা লড়াই করেছিলেন একটা গণতান্ত্রিক বাংলাদেশে গড়তে। সেই বাংলাদেশকে আমরা ফিরিয়ে আনবো।’

জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক হাফিজুর রহমান বাবলার সঞ্চালনায় সমাবেশে আরও বক্তব্য রাখেন বিএনপির কেন্দ্রীয় সহ-আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক ব্যারিস্টার রুমিন ফারহানা, কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ও লালমনিরহাট জেলা বিএনপির সভাপতি অধ্যক্ষ আসাদুল হাবিব দুলু, কেন্দ্রীয় সদস্য ব্যারিস্টার হাসান রাজীব প্রধান, জেলা মুক্তিযোদ্ধা দলের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা হাফিজুর রহমান প্রমুখ।

মন্তব্য করুন
Rajnitisangbad Youtube


আরও খবর